বৃটেনের টাওয়ার হ্যামলেটের স্পিকার আয়াছ মিয়া’র সম্মানে সিসিক মেয়রের সংবর্ধনা



বৃটেনের টাওয়ার হ্যামলেটের স্পিকার আয়াছ মিয়া

সিলেট সিটি কর্পোরেশনের সাথে ব্রিটেনের টাওয়ার হ্যামলেটের হারানো ঐতিহ্য সু-দৃঢ় করতে সিসিক ও টাওয়ার হ্যামলেট এক সাথে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করে সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেছেন, ব্রিটেনে বাংলাদেশী তথা সিলেটী কমিউনিটির অবস্থান এখন অন্য যে কোনো সময়ের তুলনায় অনেক শক্ত এবং প্রতিষ্ঠিত। এখানকার বৃটিশ বাংলাদেশী সিলেটীদের এক বৃহৎ অংশ ব্রিটেনের মূলধারার রাজনীতি, অর্থনীতি, পররাষ্ট্রনীতি, আইন ও বিচার ব্যবস্থা, সংস্কৃতি, সমাজনীতি ও সাংবাদিকতায় ব্যাপক ভূমিকা রেখে চলেছেন। সাম্প্রতিক বছরগুলোতে ব্রিটিশ মূলধারার রাজনীতিতে বাঙ্গালী সিলেটীদের অভিষিক্ত হওয়াই এর প্রমাণ।

তিনি বৃহস্পতিবার রাতে নগর ভবনে আয়োজিত সিলেটের কৃতি সন্তান বৃটেনের টাওয়ার হ্যামলেটের স্পিকার আয়াছ মিয়া’র সম্মানে আয়োজিত এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

এর আগে টাওয়ার হ্যামলেটের স্পিকার আয়াছ মিয়া নগর ভবনে আসলে তাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান মেয়র , কাউন্সিলর ও কর্মকর্তারা।

সিসিকের কর কর্মকর্তা চন্দন দাশের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে সিসিক মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী নগরীতে চলমান উন্নয়ন ও অগ্রগতি তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন। তিনি বলেন, ‘সিলেট নগরীকে প্রবাসী অধ্যুষিত নগরী পূর্ণাঙ্গরূপে প্রতিষ্টিত করতে কাজ চলছে। আগামী কয়েক মাসের মধ্যে তার কিছুটা প্রতিফলন হবে উল্লেখ করে সিসিক মেয়র বলেন, এ লক্ষে নগরীতে বেশ কয়েকটি প্রকল্প বাস্তবায়ন হচ্ছে। দেশের প্রখ্যাত নগর পরীকল্পনাবিদ প্রফেসর ড. জামিলুর রেজা চৌধুরীর পরীকল্পনায় এসব প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে সিলেট হবে একটি স্মার্ট সিটি। স্মার্ট সিটির অংশিদার হতে সিলেট নগরীর উন্নয়নে বৃটেনের টাওয়ার হ্যামলেট শিক্ষা-স্বাস্থ্য, বর্জ্য ব্যবস্থাপনা খাতে তাদের অর্থায়নে আহবান জানান।

সংবর্ধিত অতিথির বক্তব্যে বৃটেনের টাওয়ার হ্যামলেটের স্পিকার আয়াছ মিয়া বলেন, “বৃটেন টাওয়ার হ্যামলেটের মধ্যে সিলেট সিটি কর্পোরেশনের সেতু বন্ধন দীর্ঘদিনের। স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানের মধ্যে প্রতিনিধিদলের সফর বিনিময়,উন্নয়ন ও সেবামূলক বিভিন্ন বিষয়ে চুক্তি সহ সু সম্পর্ক তৈরীতে টাওয়ার হ্যামলেট কাজ করবে। তিনি বলেন, সিসিকের ওয়েস্ট ম্যানেজমেন্ট, ট্রাফিক, স্বাস্থ্য সহ বিভিন্ন প্রকল্পে টাওয়ার হ্যামলেট অংশীদারিত্ব হিসেবে কাজ করতে আগ্রহী”।

অনুষ্ঠানে অনাবাসী বাংলাদেশি গ্রুপের চেয়ারম্যান এসএম শাকিল চৌধুরী, সিসিকের প্যানেল মেয়র-৩ এবিএম জিল্লুর রহমান উজ্জল, কাউন্সিলর রেজওয়ান আহমদ, এস এম শওকত আমীন তৌহিদ, প্রধান প্রকৌশলী নুর আজিজুর রহমান, প্রকৌশলী আব্দুল আজিজ, মো: রুহুল আলম, লাইসেন্স কর্মকর্তা মো: জাহাঙ্গীর সহ সিসিকের অন্যান্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।