প্রভাবশালী চক্রের কবল থেকে কালীবাড়ি ছড়া উদ্ধার করতে সিসিকের উচ্ছেদ অভিযান



সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেছেন, দখলদাররা যত বড় প্রভাবশালী হোক না কেন, নগরবাসী ও এলাকার স্বার্থে ছড়া-খাল সংস্কার করে পানি নিষ্কাশন ব্যবস্থা তরান্বিত করা হবে। ছড়া-খাল দখল করে যারা স্থাপনা নির্মাণ করে পানি নিষ্কাশনে বাধাগ্রস্থ করছে তাদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।
বৃহস্পতিবার (১০ জানুয়ারি) বিকেলে নগরীর আখালিয়া করেরপাড়া কালীবাড়ি ছড়া ও আশেপাশের এলাকায় অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদে অভিযান শেষে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন তিনি।
মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, ‘এখন আর কেউ ছড়া, খাল, ড্রেন দখল করতে পারবেনা। দখলকারীদের খোঁজে বের করে আইনের আওতায় নিয়ে আসার কাজ শুরু হয়েছে। তিনি বলেন, দখলদাররা যত বড় প্রভাবশালী হোক না কেন তার বিরুদ্ধে অ্যাকশনে আছে সিসিক।’
এর আগে কালীবাড়ি ছড়া ও আশেপাশের এলাকায় অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদে অভিযানের পাশাপাশি ছড়ার তীর ঘেঁষে আদমশাহ জামে মসজিদ মার্কেট ও এর পাশের কয়েকটি বস্তিঘরে অভিযান চালায় ভ্রাম্যমাণ আদালত।
সিসিক সূত্র জানায়, কালিবাড়ি ছড়া ও ছড়ার রিটেইনিং ওয়ালের ওপর স্থানীয় আদম শাহ জামে মসজিদের নাম করে মার্কেট গড়ে তোলে একটি প্রভাবশালী চক্র। বিষয়টি গোচরে আসার পর ওই মার্কেট ভেঙে ফেলতে সংশ্লিষ্টদের একাধিকবার নোটিশ প্রদান করে সিসিক। তাতে কর্ণপাত না করায় বৃহস্পতিবার দুপুরে অভিযান চালানো হয়।
অভিযানে সিসিক মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী ছাড়াও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আশরাফুল আলম, সিটি কাউন্সিলর মখলিছুর রহমান কামরান, শান্তনু দত্ত সন্তু, ছয়ফুল আমিন বাকের, আফতাব হোসেন খান, রকিবুল ইসলাম ঝলক, ইলিয়াছুর রহমান, এসএম সওকত আমীন তৌহিদ, সিসিকের প্রধান প্রকৌশলী নূর আজিজুর রহমান সহ বিপূল সংখ্যক পুলিশ, সিসিকের অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন।